1. hmgrobbani@yahoo.com : admin :
  2. news@soroborno.com : Md. Rabbani : Md. Rabbani
বুধবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২২, ০৪:৫৬ পূর্বাহ্ন

দল হিসেবে ভয়ডরহীন ক্রিকেটের মন্ত্র সোহানের

Reporter Name
  • Update Time : রবিবার, ২৪ জুলাই, ২০২২

অনেকটা হঠাৎ করেই জাতীয় দলের অধিনায়কত্ব পেয়েছেন কাজী নুরুল হাসান সোহান। টানা ব্যর্থতার কারণে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদকে টি-টোয়েন্টি দলের অধিনায়কত্ব থেকে বাদ দেওয়া হয়েছে। অধিনায়ক পাল্টে আসন্ন জিম্বাবুয়ে সিরিজে তারুণ্যনির্ভর একটি টি-টোয়েন্টি দল পাঠাচ্ছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। নুরুল হাসান সোহান সেই দলের নেতা। দল হিসেবে ভয়ডরহীন ক্রিকেট খেলার বার্তা দিলেন নতুন অধিনায়ক।


কয়েক মাস আগেও দলে সোহানের জায়গা পাকা ছিল না। দলে জায়গা পাকা সেটা অধিনায়কত্ব পাওয়ার আগেও বলা যেতো না। তেমন একজনকে ‘নতুন দল’টার অধিনায়ক হিসেবে বেছে নিলেও তাতে অবশ্য সেভাবে আপত্তি তুলছেন না কেউ। কারণ অধিনায়ক নুরুল হাসান পরীক্ষিত।

ঘরোয়া ক্রিকেটে নিয়মিত নেতৃত্ব দিয়ে থাকেন তিনি। ঢাকা লিগ, জাতীয় ক্রিকেট লিগ, বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগে অধিনায়কত্ব করেছেন নিয়মিত। সাফল্যও পেয়েছেন। ঢাকা লিগ, জাতীয় লিগে চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন। তার নেতৃত্ব প্রসংশা কুড়িয়েছে বারবারই। তাছাড়া নিজেকে অমুল পাল্টে সোহান এখন ব্যাটার হিসেবেও অনেক পরিনত।


আজ রোববার (২৪ জুলাই) মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলনে কথা বলেছেন নতুন অধিনায়ক।

সোহান বলেন হঠাৎ পাওয়া বড় দায়িত্বটা যথাযথভাবে পালন করতে চান নিজের মতো করেই, ‘এটা (অধিনায়ক) তো অবশ্যই গর্বের ব্যাপার। সামনে যে চ্যালেঞ্জ আছে সেটা নিয়ে চিন্তা ভাবনা করছি। খুব বেশি রোমাঞ্চ দেখানোর সুযোগ নেই। আমার কাছে মনে হয়, দল হিসেবে এবং নিজেদের সেরা দেওয়াটাই মূল লক্ষ্য।’

দল হয়ে খেলাকে প্রাধান্য দিচ্ছেন সোহান। প্রথম সংবাদ সম্মেলনে দল হয়ে খেলার বিষয়টি উল্লেখ করলেন বারবার। বলেন, ‘আমি ঘরোয়া ক্রিকেটে যখনই অধিনায়কত্ব করেছি, আমার সব সময় চাওয়া থাকে আমরা যেন দল হিসেবে খেলতে পারি। অবশ্যই লক্ষ্য থাকবে জিম্বাবুয়েতে যেন দল হিসেবে খেলতে পারি। মূল যে বিষয়টি আমার কাছে গুরুত্বপূর্ণৃ দলের পরিবেশ যেন ভালো থাকে। সবাই তো প্রতিদিন পারফর্ম করবে না। আমরা যারা দলের ক্রিকেটার থাকবো ১৪-১৫ জন, তারা যেন একজনের সাফল্য আরেকজন উপভোগ করি। এই সংস্কৃতি এবং দল হিসেবে খেলাটাই আমার কাছে গুরুত্বপূর্ণ।’


নতুন অধিনায়ক বলেন, ‘আমরা টেস্ট ও টি-টোয়েন্টিতে ওয়ানডে থেকে পিছিয়ে আছি। আমার কাছে মনে হয় উন্নতি করাটা গুরুত্বপূর্ণ। আমরা সেটাই চেষ্টা করছি। এজন্য প্রক্রিয়াটা গুরুত্বপূর্ণ। রেজাল্ট বা আউটকামের থেকে প্রক্রিয়া মেনে চলার চেষ্টা করবো। এই সিরিজে দলগতভাবে খেলা আমার কাছে বড় কাজ বলে মনে হচ্ছে।’

বাংলাদেশ তার অধীনে কোন ধরনের টি-টোয়েন্টি খেলবে, এমন প্রশ্নে ভয়ডরহীন ক্রিকেটের বার্তা দিলেন সোহান। বলেছেন, ‘ভয়ডরহীন ক্রিকেট খেলাটা গুরুত্বপূর্ণ। অবশ্যই চেষ্টা করব, যেন এটা করতে পারি। আগে থেকে ভেবে নিলে প্রক্রিয়া ঠিক থাকে না। আশা করি প্রক্রিয়াটা ধরে রাখতে পারব।’


সোহানের অধিনায়কত্ব অধ্যায় শুরু হবে ৩০ জুলাই থেকে। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে তিন ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজের প্রথম ম্যাচটি খেলতে সেদিন মাঠে নামবে বাংলাদেশ। সিরিজের পরবর্তী দুই ম্যাচ যথাক্রমে- ৩১ ও ২ আগস্ট।

More News Of This Category
© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। এই ওয়েবসাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি