1. hmgrobbani@yahoo.com : admin :
  2. noushaduddin16@gmail.com : uddin : uddin uddin
  3. news@soroborno.com : Md. Rabbani : Md. Rabbani
  4. nooruddinrasel@yahoo.com : nooruddin rasel : nooruddin rasel
  5. sultansumon2050@gmail.com : Sultan Sumon : Sultan Sumon
রবিবার, ০১ অগাস্ট ২০২১, ১১:২৮ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
বঙ্গবন্ধু হত্যা ষড়যন্ত্রের পেছনে কারা ছিল, একদিন বের হবে: প্রধানমন্ত্রী গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে করোনাভাইরাসে মারা গেছেন আরও ২৩১ জন সিলেটে টিকটক ব্যবহারকারীদের তালিকা করছে পুলিশ, শীঘ্রই অ্যাকশন বাংলাদেশ দলের ওপেনার আসতে পারে নতুন চমক গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগী ভর্তি ২৩৭ জন সব হাসপাতালে পর্যাপ্ত সিট বরাদ্দের নির্দেশনা চেয়ে রিট আগামীকাল থেকে শুরু অ্যাস্ট্রাজেনেকার দ্বিতীয় ডোজ দেওয়া মন্ত্রণালয় ভালো কাজ করছে বলে অর্থনীতি ভালো চলছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী দোকানপাট ৬ আগস্ট থেকে খুলে দেওয়ার দাবি ইতিহাসের নিষ্ঠুরতম রাজনৈতিক হত্যাকাণ্ড ছিলো ১৫ আগস্ট-ওবায়দুল কাদের।

উত্তর কোরিয়ার শীর্ষ কূটনৈতিকের দক্ষিণ কোরিয়ায় পলায়ন

Reporter Name
  • Update Time : সোমবার, ২৫ জানুয়ারী, ২০২১

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

উত্তর কোরিয়ার একজন শীর্ষ কূটনৈতিক দক্ষিণ কোরিয়াতে পালিয়ে গেছেন। ওই কূটনৈতিকের নাম রিয়্য হিউন-উ। তিনি কুয়েতের রাষ্ট্রদূত হিসেবে নিযুক্ত ছিলেন। খবর বিবিসি।

দক্ষিণ কোরিয়ার সংবাদমাধ্যম মেইল বিজনেস ডেইলি জানায়, ২০১৯ সালে নিজ পরিবারসহ পলায়ন করেন রিয়্য হিউন-উ। তিনি তার সন্তানদের উন্নত ভবিষ্যতের জন্য এমনটা করেছেন।

এর মধ্যে দিয়ে দেশটির সাবেক রাষ্ট্রদূত জো সং-গিল ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঘটলো। যিনি ইতালিতে নিযুক্ত ছিলেন। ২০১৮ সালে তিনি নিখোঁজ হন এবং ২০১৯ সালে তিনি পালিয়ে দক্ষিণ কোরিয়া যান। আর ২০২০ সালে তার এই ঘটনা জনসম্মুখে প্রকাশ পায়।

তবে দক্ষিণ কোরিয়ার কর্মকর্তারা এ বিষয়ে মন্তব্য করতে রাজি হননি। গণমাধ্যমটি জানায়, রিয়্য হিউন-উ ২০১৯ সালে সেপ্টেম্বরে দক্ষিণ কোরিয়ায় রাজনৈতিক আশ্রয়ের জন্য এসেছিলেন বলে ধারণা করা হয়। তবে বিষয়টি এখনো গোপন রাখা হয়েছে।

তবে উত্তর কোরিয়ার শীর্ষ কর্মকর্তাদের এভাবে পালানোর ঘটনাই খুবই কম। যদিও প্রতিবছর একহাজার লোক গোপনে দেশটি ত্যাগ করেন।

হিউন-উ ২০১৩ সালে কুয়েতে ভারপ্রাপ্ত রাষ্ট্রদূত হিসেবে নিযুক্ত ছিলেন। ধারণা করা হচ্ছে, হিউন-উ দেশটির গোপন তহবিলের সাবেক প্রধান জোন ইল চুনের জামাতা।

এর আগে, ২০১৬ সালে যুক্তরাজ্যের নিযুক্ত সহকারী রাষ্ট্রদূত থাই ইং-হো তার পরিবারসহ পালিয়েছিলেন। এর চার বছর পর দক্ষিণ কোরিয়ায় অনুষ্ঠিত নির্বাচনে একটি আসন থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে জয়লাভের পর আলোচনায় আসেন তিনি।

More News Of This Category
© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। এই ওয়েবসাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি